রুহিয়ায় আমন ধানে বেড়েছে পাতা ব্লাস্ট ও কারেন্ট পোকার উপদ্রব

সোমবার, ১২ অক্টোবর ২০২০ | ৭:২২ অপরাহ্ণ | 44 বার

রুহিয়ায় আমন ধানে বেড়েছে পাতা ব্লাস্ট ও কারেন্ট পোকার উপদ্রব

আর মাত্র কয়দিন বাকী ধান কাটবে কৃষক ঘরে তুলবে সোনালী ফসল এই স্বপ্নে বুক বেধেছে কৃষক। কিন্তু তাদের এই স্বপ্ন একেবারেই পন্ড করতে বসেছে ধানের পাতা ব্লাস্ট (বি এল বি) ও কারেন্ট পোকা (বাদামী গাছ ফড়িং)।

সরেজমিনে রুহিয়া থানাধীন কয়েকটি ইউনিয়নে ঘুরে দেখা যায় এবার আমন ধানে ব্যাপকহারে ধানের পাতা ব্লাস্ট ও কারেন্ট পোকা আক্রমণ হয়েছে। যার কারণে পাতার উপরের অংশের দিক থেকে প্রথমে কালো দাগ এবং পরে ধীরে ধীরে শুকিয়ে আসছে। আবার কারেন্ট পোকার জন্য লালচে হয়ে যাচ্ছে ধানের গাছ। যার ফলে কমছে ধানের ফলন। কানি কশালগাঁও গ্রামের বুলবুল ও মনজু ইসলাম জানান, এবার আবহাওয়া ভালো থাকায় ধানের ফলন ভালো হওয়ার কথা থাকলেও বর্তমানে ধানে ব্যাপক আকারে ব্লাস্ট ও কারেন্ট পোকা লেগেছে। যার ফলে ভালো ফসলের আশা হারিয়ে ফেলেছি।



আমরা ইতিমধ্যে বেশ কিছু বালাই নাশক স্প্রে করলেও শতভাগ ফলাফল পাইনি। এছাড়া ভালো কোন পরামর্শ নেওয়ার জন্য কৃষি অফিসারের দেখা পাওয়ায় যাচ্ছে না। রুহিয়ায় কীটনাশক কিনতে আসা রাজাগাঁও ইউনিয়নের মজিবর রহমান জানান, কারেন্ট পোকার জন্য ধানের কিছু অংশে ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে যা থেকে ফলনের কোন আসা নেই। রুহিয়ায় কীটনাশক ব্যবসায়ী সুলতান আলী ও নজরুল ইসলাম জানান, গত বছরের তুলনায় এবার আমন মৌসুমে কৃষক ধানের ব্লাস্ট দমনে ব্যাকট্রেরিয়া ও ছত্রাক নাশক এবং কারেন্ট পোকা দমনে পাইমেট্রোজিন + নাইটেনপাইরাম, এসিফেড গ্রুপের কীটনাশক কৃষক বেশির ভাগ ব্যবহার করছেন। কৃষকের চাহিদা মোতাবেক আমরা উক্ত গ্রুপের কীটনাশক বিক্রি করছি। রুহিয়া পশ্চিম ইউনিয়নের দায়িত্বে থাকা উপ-সহকারী কৃষি অফিসার সুবাস চন্দ্র রায় ও রাজাগাঁও ইউনিয়নের দায়িত্বে থাকা উপ-সহকারী কৃষি অফিসার আলী হোসেন বলেন, আমরা এ বিষয়ে কৃষকের সাথে উঠান বৈঠক করে বিভিন্ন পরামর্শ প্রদান করেছি এবং কি এসব রোগ দূরিকরণে লিফলেট বিতরণ করেছি। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ঠাকুরগাঁও জেলা কৃষি অতিরিক্ত উপ-পরিচালক কৃষিবিদ আনিছুর রহমান জানান, আমরা ব্লাস্ট এবং কারেন্ট পোকা দমনে সার্বক্ষনিক মনিটরিং করছি।

আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
মরহুম খােরশেদ আলম চৌধুরী স্মৃতি ব্যডমিন্টন টুর্নামেন্ট ২০-২১ ফাইনাল খেলা উদযাপিত!

Development by: webnewsdesign.com