রবিবার ২রা অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১৭ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম >>
শিরোনাম >>
সিএনএন’র প্রতিবেদন

রানি এলিজাবেথকে শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের সময় মুখ থুবড়ে পড়ে গেলেন রয়্যাল গার্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   শুক্রবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২২ | প্রিন্ট

রানি এলিজাবেথকে শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের সময় মুখ থুবড়ে পড়ে গেলেন রয়্যাল গার্ড

ওয়েস্টমিনস্টার হল। পোডিয়ামের উপরে রাখা রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের কফিন। ব্রিটেনের মহারানির মরদেহ ঘিরে রেখেছে রয়্যাল গার্ড। চলছে শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের নানা রীতিনীতি।

হঠাৎই ছন্দপতন। রানির কফিন ঘিরে দাঁড়িয়ে থাকা এক রক্ষী হঠাৎই মুখ থুবড়ে পড়ে গেলেন মাটিতে। সঙ্গে সঙ্গে ছুটে এলেন দাঁড়িয়ে থাকা দুই রক্ষী এবং এক ব্যক্তি। তারা তিনজন মিলে ওই রক্ষীকে তোলার চেষ্টা করলেন।

শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের এই অনুষ্ঠান সরাসরি সম্প্রচার হচ্ছিল। ওই রক্ষী পড়ে যাওয়ার পরই কয়েক মিনিটের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয় সম্প্রচার। অবশ্য, তাতে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন বন্ধ করা হয়নি। যথারীতি প্রয়াত রানিকে শ্রদ্ধা জানাতে যাবতীয় রাজকীয় রীতিনীতি পালন করা হয়।

তবে, রক্ষীর পড়ে যাওয়ার ভিডিওটি এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় রীতিমতো ভাইরাল। কিন্তু ওই রক্ষী হঠাৎ কেন পড়ে গেলেন, সে সম্পর্কে ব্রিটেন সরকারের পক্ষ থেকে কিছু জানানো হয়নি। মনে করা হচ্ছে, দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকার ফলে সমস্যা হয় ওই রক্ষীর।

গত ৮ সেপ্টেম্বর স্কটল্যান্ডের বালমোরাল ক্যাসেলে ৯৬ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন এলিজাবেথ। তার মরদেহ মঙ্গলবার লন্ডনে আনা হয়।

বাকিংহাম প্যালেস ঘুরে রানির মরদেহ এখন রাখা হয়েছে ওয়েস্টমিনস্টার হলে। প্রাচীন রাজকীয় রীতিনীতি মেনে হলের মাঝে একটি পোডিয়ামের উপর রানির কফিন রাখা হয়েছে। এই পোডিয়ামটিকে ‘ক্যাটাফাল্ক’ বলে। এখানেই এলিজাবেথকে শেষশ্রদ্ধা জানাচ্ছেন সাধারণ মানুষ।বৃহস্পতিবারও রানিকে শ্রদ্ধা জানানোর জন্য উপচে পড়েছিল ভিড়। হাজার হাজার মানুষ লাইন দিয়ে ঢুকে ওয়েস্টমিনস্টার হলে শেষশ্রদ্ধা জানাচ্ছেন ব্রিটেনের প্রয়াত রাষ্ট্রপ্রধানকে। বুধবার বিকাল পাঁচটা থেকে সাধারণের জন্য খুলে দেওয়া হয় হলের গেট। সেই সময় এত ভিড় হয় যে, প্রায় ১১ কিলোমিটার দীর্ঘ লাইন পড়ে যায়।

এপ্রসঙ্গে ব্রিটেনের ডিজিটাল, মিডিয়া ও স্পোর্টস ডিপার্টমেন্টের বক্তব্য, যাতে কোনও অবস্থাতেই ১৬ কিলোমিটারের বেশি লাইন না পড়ে, সেই বিষয়টি নিশ্চিত করতে কড়া নজরদারি চালানো হচ্ছে।

মঙ্গলবার রানির মরদেহ লন্ডনে আনার পর সারারাত বাকিংহাম প্যালেসে রাখা হয়। তারপর বুধবার দুপুরে শোকযাত্রা করে ঘোড়ায় টানা গাড়িতে এলিজাবেথের কফিন পৌঁছায় ওয়েস্টমিনস্টার হলে। ওই শোকযাত্রায় উপস্থিত ছিলেন রাজা তৃতীয় চার্লস, প্রিন্স উইলিয়াম ও হ্যারি। এছাড়াও ছিলেন রানির মেয়ে অ্যান এবং দুই ছেলে অ্যান্ড্রু ও এডওয়ার্ড।

এই শোকযাত্রা দেখে মা ডায়ানার শেষযাত্রার কথা মনে পড়ে যাচ্ছিল বলে জানিয়েছেন প্রিন্স উইলিয়াম।

সোমবার এলিজাবেথের শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে। ওইদিন স্থানীয় সময় বেলা ১১টা ৫৫ মিনিটে ব্রিটেনজুড়ে ২ মিনিট নীরবতা পালন করা হবে। তারপর পরিবেশন হবে জাতীয় সঙ্গীত। এরপর ওয়েস্টমিনস্টার হল থেকে রানি মরদেহ নিয়ে শোকযাত্রা শুরু হবে। দুপুর ১টায় তা পৌঁছাবে ওয়েলিংটন আর্চে। রাজপরিবারের সদস্যদের সঙ্গে এই যাত্রায় থাকবে কমনওয়েলথের সশস্ত্রবাহিনী। তারপর হাইড পার্কে দেওয়া হবে গান স্যালুট।

তারপর শোকযাত্রা রওনা দেবে উইনসরের উদ্দেশে।

সবশেষে বিকাল ৪টায় সময় প্রিন্স ফিলিপের সমাধির পাশেই রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথকে সমাধিস্থ করা হবে। মৃত্যুর পর এভাবেই ফিলিপ ও এলিজাবেথ ফের মিলিত হবেন। 

সূত্র: সিএনএন,টিএমজেড,মার্কা,ইভিনিং স্ট্যান্ডার্ড,ইউএএস ম্যাগাজিন,নিউ ইয়র্ক পোস্ট

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১১:২৬ পূর্বাহ্ণ | শুক্রবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২২

dhakanewsexpress.com |

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১  
মোঃ মাসুদ রানা হানিফ সম্পাদক