সর্বশেষ সংবাদ

x



পঞ্চগড়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ উমের আলী

বৃহস্পতিবার, ২৩ জুলাই ২০২০ | ১১:১১ অপরাহ্ণ | 71 বার

পঞ্চগড়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে  তরুণীকে ধর্ষণ উমের আলী
পঞ্চগড়ে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তরুণীকে ধর্ষণ উমের আলী
পঞ্চগড় সদর উপজেলার সাতমেরা ইউনিয়নের বকশীগঞ্জ পশ্চিম পাড়া গ্রামের পেশায় কসাই উমের আলী (২৩)বাড়িতে স্ত্রী-সন্তান রেখে  মিথ্যা ঠিকানা দিয়ে পঞ্চগড় সদর ইউনিয়ের ডাবর ভাঙ্গা গ্রামের মজিবুর রহমান এর কন্যাকে বিয়ে করবে বলে একাধিকবার ধর্ষণ করেছে উমের আলী কসাই। (২৩) উমের আলী সাতমেরা ইউনিয়নের বকশীগঞ্জ পশ্চিম পাড়া গ্রামের সোলেমান আলী ছেলে।
 এদিকে সদর ইউনিয়নের মজিবর রহমানের কন্যা জানায় কসাই উমের আলী আমার ৩ মাসের একটি বাচ্চা নষ্ট করেছে  (১৯জুলাই) আমি বিয়ের দাবিতে উমের আলীর বাড়িতে আসলে জানতে পারি উমের আলীর স্ত্রী-সন্তান আছে। এবং উমের আলীর বাড়ির লোকজন আমাকে বেধড়ক মারপিট করে, পরে স্থানীয় লোকজন আমাকে ইউপি সদস্য মেম্বার নি শেফালির বাসায় রেখে যায়।
এখন আমি কোথায় যাব কি করব ভাবতে পারছি না।এদিকে বিসয়টি এলাকায় জানাযানি হলে বিভিন্ন এলাকা থেকে মানুষকে এসে ভিড় জমায়, একপর্যায়ে ইউপি সদস্য শেফালির স্বামী উত্তেজিত হয়ে মানুষকে বকা বাধ্য ও করেন।
এদিকে নাম বলতে অনিচ্ছুক ওই এলাকার সচেতন মানুষেরা জানায় বিসয়টি ধামাচাপা দেওয়ার জন্য মাতাব্বর ও ইউপি সদস্যরা নীলনকশা তৈরি করে। ধর্ষণ ও নবজাতক হত্যা বিষয়টি মাত্র ৮০ হাজার টাকার মাধ্যমে রফাদফা করেন ইউপি সদস্য ও ইউপি সদস্য শেফালী সহ দুই পক্ষের ইউপি সদস্য মাতাববর রা।
এলাকার সচেতন মানুষেরা বলেন এই যদি হয় ধর্ষণ ও নবজাতক হত্যা বিচারের  নমুনা তাহলে সমাজে এধরনের অপরাধ বারবে না কমবে এটাই এখন ভাবার বিসয়। এদিকে অসহায় ধর্ষিতা তরুণী নিরুপায় হয়ে এ ধরনের অন্যায় বিচার নিরবে দুঃখের সাথে মেনে নিতে হয়েছে।
নানা ভয় ভীতি দেখিয়ে তরুণী ও তার পরিবারকে বাধ্য করা হয়েছে এই অন্যায় বিচার মাথা পেতে নিতে। স্থানীয় সুশীল সমাজ এসব বিষয়গুলো ভালোভাবে দেখভাল করার জন্য নুন্যতম কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ ও দৃষ্টি আকর্ষণ করার জন্য অনুরোধ করছেন। তানাহলে অদূর ভবিষ্যতে সমাজে টিকে থাকা কঠিন হয়ে দাঁড়াবে।



আর্কাইভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১
পঞ্চগড় বাংলাবান্ধা ১নং ইউনিয়ন পরিষদে আবারো কুদরত-ই-খুদা মিলন কে চায় জনগণ

Development by: webnewsdesign.com