জনপ্রিয় সংবাদ

x

দুধে কী পরীক্ষা চালালেন প্রফেসর সাহেব, রিট হলো

মঙ্গলবার, ৩০ জুলাই ২০১৯ | ৫:১২ অপরাহ্ণ | 53 বার

দুধে কী পরীক্ষা চালালেন প্রফেসর সাহেব, রিট হলো

বাজারের পাস্তুরিত দুধের চলমান সংকটের বিষয়ে উদ্বেগ জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘আমি জানি না হঠাৎ করে একজন প্রফেসর সাহেব কী পরীক্ষা চালালেন, আর এই পরীক্ষার ওপর ভিত্তি করে আদালতে রিট হলো । একে একে সব কোম্পানির দুধ উৎপাদন বন্ধ।

আমদানি করা গুঁড়ো দুধের ব্যাপারে কোনো পরীক্ষা হয় না। তাই গুঁড়ো দুধ আমদানিকারকদের কোনো কারসাজি এখানে আছে কি-না সেটিই এখন বড় প্রশ্ন হয়ে দেখা দিয়েছে।’

মঙ্গলবার (৩০ জুলাই) সকাল ১১টায় রাজধানীর বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক জরুরি সভায় মোবাইল ফোনের মাধ্যমে যুক্ত হোন প্রধানমন্ত্রী। সেখানেই নেতাকর্মীদের নির্দেশনা দেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, গবাদি পশুকে রোগমুক্ত রাখতে অনেক সময় অ্যান্টিবায়োটিক খাওয়ানো হয়। সেক্ষেত্রে দুধে কিছুটা অ্যান্টিবায়োটিকের উপস্থিতি থাকতে পারে। তবে দুধের যে সংকট সৃষ্টি হয়েছে তা থেকে পরিত্রাণ পেতে সরকার কাজ করছে। একে একে সব কোম্পানির দুধ উৎপাদন বন্ধ। এর ফলে দুধের ঘাটতিতে পড়েছে সাধারণ মানুষ। আবার যারা খামার করছে তারাই বা কীভাবে জীবনযাপন করবে, আর গরুকেই বা কী খাওয়াবে।

গুজব ও গণপিটুনি ইস্যুতে প্রধানমন্ত্রী দেশবাসীকে কান না দেওয়ার আহ্বান জানিয়ে বলেন, কাউকে সন্দেহ হলে পুলিশের হাতে তুলে দিন। মিডিয়ার যারা আছেন তাদের বলবো, অহেতুক ভুল তথ্য ছড়িয়ে সাধারণ মানুষকে বিভ্রান্ত করবেন না। গুজব ও ভুল তথ্য প্রচারকারী এবং গণপিটুনিতে জড়িতদের হুঁশিয়ারিও উচ্চারণ করেন প্রধানমন্ত্রী

বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘ভৌগোলিক কারণে আমাদের দেশে বিভিন্ন সময় নানা প্রাকৃতিক দুর্যোগ দেখা যায়। বর্তমানে বেশ কয়েকটি জেলায় যে বন্যা দেখা দিয়েছে, তা মোকাবিলায় দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়সহ সরকারের অন্যান্য দায়িত্বশীলরা কাজ করছে। তাছাড়া আওয়ামী লীগের সব পর্যায়ের নেতাকর্মীদের বন্যাকবলিতদের সাহায্য-সহযোগিতা করতে বলা হয়েছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘বন্যা ও নদী ভাঙন থেকে রক্ষা পেতে ও নদীগুলোতে পানি ধরে রাখতে ইতোমধ্যে আওয়ামী লীগ সরকার নদীগুলো ড্রেজিংয়ের কাজ করছে। নদীর পানি ধারণক্ষমতা বাড়াতে পারলে নদীভাঙন ও বন্যা প্রবণতা কমবে এবং শুষ্ক মৌসুমেও পানির ঘাটতি কমবে।’

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবীর নানক, আব্দুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, এনামুল হক শামীম, কার্যনির্বাহী সদস্য কামরুল ইসলাম, ঢাকা দক্ষিণের মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন, ঢাকা উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল হাসনাত, সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের উত্তরের সভাপতি একেএম রহমতউল্লাহ, সাধারণ সম্পাদক সাদেক খানসহ দলীয় সংসদ সদস্য ও সহযোগী সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকরা।

Development by: webnewsdesign.com