মঙ্গলবার ২৭শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১২ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম >>
শিরোনাম >>

ছেঁড়া টাকা নিয়ে দুশ্চিন্তা কেন?

নিজস্ব প্রতিবেদক   |   রবিবার, ০৭ আগস্ট ২০২২ | প্রিন্ট

ছেঁড়া টাকা নিয়ে দুশ্চিন্তা কেন?

আমার এক প্রতিবেশী বাজার থেকে এক কেজি গরুর মাংস কেনার পর বিক্রেতাকে পাঁচশত টাকার দুইটা নোট দিলেন। বিক্রেতা একটি নোট রেখে অন্যটি ফেরত দিয়ে দিলেন। টাকার এক কোনায় সামান্য একটু ছেঁড়া আছে, সেজন্য সেই টাকা পাল্টে দিতে বললেন।

সেই প্রতিবেশী মানুষটি পড়লেন মহাবিপদে। পকেটে সেই মুহূর্তে তেমন টাকা ছিল না, যা মাংস বিক্রেতাকে দিতে পারেন। দোকানিকে যতই তিনি বোঝাবার চেষ্টা করলেন, এই ছেঁড়ায় কোন সমস্যা হবে না কিন্তু সব চেষ্টাই ব্যর্থ হল।

দোকানির সাফ কথা, ভাইজান এই টাকা কেউ নেবে না। ব্যাংকের ডিপিএস জমা দিতে পারব না। আপনি পাল্টে না দিলে আমার পুরাই ক্ষতি হয়ে যাবে।

বাধ্য হয়ে অনেক মানুষজনের মধ্যে গরুর মাংস ফেরত দিয়ে দিলেন। পরে অন্য দোকান থেকে পাঁচশত টাকার মধ্যে দেড় কেজি ওজনের মুরগি নিয়ে বাড়ি ফিরলেন।

এরপর বিকেলে যখন তার সাথে দেখা হল, আমাকে সেই পাঁচশত টাকা দিয়ে বললেন এটা কি করা যায়? সামান্য একটু ছেঁড়া ছিল। অমি বললাম এই টাকায় সমস্যা নেই, চলবে। যে কোন ব্যাংকের শাখায় নিয়ে গেলে নিয়ম অনুযায়ী পাল্টে দেবে। শাখায় ক্যাশ কাউন্টারের সামনে সবাই দেখতে পারে এমন স্থানে ‘ছেঁড়া ফাটা ও ময়লা নোট গ্রহণ করা হয়’, এই মর্মে নোটিশ দেওয়া থাকে। তখন তিনি উপরের ঘটনা খুলে বললেন।

ছেঁড়া টাকা সম্পর্কে ধারণা না থাকার কারণে অনেকেই উদ্বিগ্ন হয়ে পড়ে, টাকা বাজারে চলবে কিনা মূলত সেই দুশ্চিন্তায়। এই সুযোগে বিভিন্ন দালাল শ্রেণী বাট্টায় টাকা বিনিময়ের ব্যবসা করে। অথচ বাংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলেও কোন না কোন ব্যাংকের শাখা আছে।

লেখকঃ রিয়াজুল হক, যুগ্ম পরিচালক, বাংলাদেশ ব্যাংক।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৪:৫৫ অপরাহ্ণ | রবিবার, ০৭ আগস্ট ২০২২

dhakanewsexpress.com |

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
মোঃ মাসুদ রানা হানিফ সম্পাদক