Rz Rasel
০ দিন পূর্বে
11:32 pm
মৈত্রী এক্সপ্রেসে বাংলাদেশের নারী যাত্রীর শ্লীলতাহানি, সাসপেন্ড বিএসএফ কনস্টেবল
০ দিন পূর্বে
11:27 pm
আলাদা ব্যবস্থা করা হবে হকারদের জন্য : আইভী
০ দিন পূর্বে
11:22 pm
‘বজরঙ্গি ভাইজান’ মুক্তি পাচ্ছে চীনের ৮ হাজার প্রেক্ষাগৃহে
০ দিন পূর্বে
11:17 pm
দেশের প্রথম নিউক্লিয়ার পাওয়ার প্লান্টে ব্যবহার হবে বসুন্ধরা সিমেন্ট
০ দিন পূর্বে
6:08 pm
ঠাকুরগাঁওয়ে পুলিশপত্নীর নগ্ন ছবি ইন্টারনেটে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ৫০ হাজার টাকার চাঁদা দাবি\ গ্রেফতার-৩
০ দিন পূর্বে
6:04 pm
সিন্ডিকেট মুক্ত ছাত্রলীগ হবে জাতিরজনকের প্রকৃত ছাত্রলীগ
২ দিন পূর্বে
6:05 pm
রাবিতে স্থগিতকৃত দশম সমাবর্তন মার্চে
৩ দিন পূর্বে
11:56 pm
‘মৃত্তিকা প্রতিবন্ধীবান্ধব সাংবাদিকতা অ্যাওয়ার্ড’ পেলেন ভৈরবের সুমন মোল্লা
৩ দিন পূর্বে
11:48 pm
ঢাকা আন্তর্জাতিক বাণিজ্য মেলা ২০১৮-এ অপো এফ ৫ বিজয়ীদের নাম ঘোষণা
৩ দিন পূর্বে
11:43 pm
মোরেলগঞ্জে,শরণখোলায় কমিউনিটি ক্লিনিক কর্মীদের তিন দিনব্যাপী অবস্থান কর্মসূচি
৩ দিন পূর্বে
11:39 pm
শ্রীমঙ্গলে জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহের সমাপনী ও পুরস্কার বিতরণ
৩ দিন পূর্বে
11:28 pm
তানোরে স্কুল ছাত্রীর আত্মহত্যা
৩ দিন পূর্বে
11:23 pm
তানোরে শিশুদের শীতবস্ত্র বিতরণ করলেন বিভাগীয় কমিশনার
৩ দিন পূর্বে
11:16 pm
বৈষম্যহীন শিক্ষা ব্যবস্থা ও অসাম্প্রদায়িক,গণতান্ত্রিক দেশ গড়ার কারিগর ছিলেন শহীদ আসাদ
৩ দিন পূর্বে
10:53 pm
প্রেমিকের সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক ইনস্টাগ্রামে লাইভ, তারপর…
৩ দিন পূর্বে
8:09 pm
এই কলগার্লের জন্যই নাকি পদচ্যুত হয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী
৩ দিন পূর্বে
8:07 pm
২০ প্রেতাত্মার সঙ্গে ‘যৌন সম্পর্ক’ এই ব্রিটিশ যুবতীর!
৩ দিন পূর্বে
7:40 pm
অন্তরঙ্গ সময়ে টিভির নেশায় বুঁদ প্রেমিকা, ফলাফল…!
৩ দিন পূর্বে
5:58 pm
মা হচ্ছেন প্রীতি জিনতা!
৩ দিন পূর্বে
5:33 pm
খরচ বাঁচাতে ৮ জোড়া প্যান্ট ও ১০ জামা পরে বিমানবন্দরে যুবক
৩ দিন পূর্বে
5:22 pm
‘বিএনপির কোনো নীতি আদর্শ নেই’
৩ দিন পূর্বে
5:19 pm
যে ৮টি উপকারে আসতে পারে ফিটকিরি
৩ দিন পূর্বে
5:17 pm
অমিতাভ ও মাধুরীদের সারিতে সানি লিওন
৩ দিন পূর্বে
5:10 pm
ভারত বিরাটের ওপর অতিরিক্ত নির্ভরশীল : রাবাদা
৩ দিন পূর্বে
5:08 pm
অবশেষে ঢেকে দেওয়া হল দীপিকার উন্মুক্ত পেট (ভিডিও)
কিউবায় বারাক ওবামার ঐতিহাসিক সফর শুরু

index ঐতিহাসিক সফরে কিউবায় পৌঁছেছেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা। ১৯৫৯ সালে কিউবায় বিপ্লবের পর এই প্রথম কোনো মার্কিন প্রেসিডেন্ট দেশটি সফরে গেলেন। এর মধ্য দিয়ে দুই দেশের মধ্যে চলে আসা দীর্ঘদিনের শত্রুভাবাপন্ন সম্পর্কের অবসান ঘটতে যাচ্ছে। বিবিসি অনলাইন বলছে, গত বছর মার্কিন দূতাবাস পুনরায় খোলার মধ্য দিয়ে দুই দেশের মধ্যে সম্প্রীতির নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হয়। আর ওবামার এ সফরের মধ্য দিয়ে দীর্ঘদিনের বৈরী সম্পর্ক অতীতের খাতায় চলে গেল। বাংলাদেশ সময় রোববার মধ্যরাতে কিউবায় পা রাখেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। প্রায় ৮৮ বছর পর ক্ষমতাসীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট হিসেবে কিউবা সফরে গেলেন তিনি। কিউবার রাজধানী হাভানায় পুনরায় খোলা মার্কিন দূতাবাসে গিয়ে সেখানকার কর্মকর্তাদের উদ্দেশে বারাক ওবামা বলেন, এই সফরকে ঐতিহাসিক বলে মনে করেন তিনি। সফরে দেশটির প্রেসিডেন্ট ও কমিউনিস্ট নেতা রাউল কাস্ত্রোর সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। এ ছাড়া পুরোনো শহর ঘুরে দেখার আগ্রহও প্রকাশ করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। রাউল কাস্ত্রোর সঙ্গে দেখা হলেও অবসরে যাওয়া বিপ্লবী নেতা ফিদেল কাস্ত্রোর সঙ্গে দেখা হবে না ওবামার। কিউবার প্রেসিডেন্টের সঙ্গে বাণিজ্য ও রাজনীতি নিয়ে বৈঠক করবেন তিনি। সফরে মার্কিন ফার্স্ট লেডি মিশেল ওবামা এবং তাদের দুই মেয়ে শাশা ও মালিয়াও ওবামার সঙ্গে রয়েছেন। মার্কিন দূতাবাসে নিজের বক্তব্যে ওবামা বলেন, ‘এখানে আসতে পেরে আমার খুবই ভালো লাগছে। ১৯২৮ সালে প্রেসিডেন্ট ক্যালভিন কিউবা এসেছিলেন রণতরী নিয়ে। সেই সময় তাঁর আসতে সময় লেগেছিল তিন দিন। আর আমি এসেছি মাত্র তিন ঘণ্টায়। এই প্রথমবারের মতো আমার বিমান এয়ারফোর্স ওয়ান কিউবার মাটি স্পর্শ করেছে।’ নিজের এই সফরকে অতীতের তুলনায় উজ্জ্বল ভবিষ্যতের দৃষ্টান্ত স্থাপন করার সুযোগ হিসেবে দেখছেন ওবামা। বিবিসি অনলাইন জানিয়েছে, মার্কিন দূতাবাসের কর্মকাণ্ড শেষ করে হেঁটে পুরোনো শহর দেখতে বের হন বারাক ওবামা। এরপরের দুই ঘণ্টা রাস্তার আশপাশের সাধারণ মানুষের সঙ্গে কথা বলেন তিনি। এ সময় বেশ ঝড়-বৃষ্টি হচ্ছিল। তবে এসবের তোয়াক্কা না করে ছাতা মাথায় দিয়েই ঘুরে বেড়ান মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এর আগে ২০১৪ সালের শেষে দীর্ঘদিনের বৈরিতার সম্পর্কের অবসান ঘটাতে রাজি হন বারাক ওবামা ও রাউল কাস্ত্রো।